• ঢাকা
  • সোমবার, ৩ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ; ১৮ অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
  • Govt. SL. No:-352

Advertise your products here

ফুলবাড়ীতে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত শিল্পীরা 


ডে-নাইট-নিউজ ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ০৪:০৭ পিএম;
ফুলবাড়ীতে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত শিল্পীরা 
ফুলবাড়ীতে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত শিল্পীরা 

কিছুদিন বাদেই শুরু হবে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সর্ববৃহৎ উৎসব শারদীয় দুর্গা পূজা। এ উপলক্ষে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত সময় পার করছেন দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার প্রতিমা শিল্পীরা। গতবার করোনার কারণে ঠিকঠাক মতো পূজোর আয়োজন না হলেও এবার চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি। উপজেলার প্রতিটি মÐপে পুরোদমে চলছে প্রতিমা তৈরি ও মন্দির সাজানোর কাজ। এবার ফুলবাড়ী উপজেলায় ৫৮ টি মÐপে দুর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হবে। ইতোমধ্যে অনেক মÐপে দেবীর মূর্তির কাজ শেষ পর্যায়ে। এখন শুধু রঙ তুলির আঁচড়ে ফুটিয়ে তোলার অপেক্ষা। সবমিলিয়ে প্রতিমা শিল্পীদের এখন দম ফেলার ফুসরত নেই। .

প্রতিমাশিল্পী শ্রী বাবলু চন্দ্র বলেন, প্রতিমা তৈরিতে এঁটেল ও বেলে মাটি ছাড়াও বাঁশ-খড়, দড়ি, লোহা, ধানের কুঁড়া, পাট, কাঠ, রঙ, বিভিন্ন রঙের সিট ও শাড়ি-কাপড়ের প্রয়োজন হয়। তিনি আরো বলেন, দুর্গা পূজার দেড় মাস আগে থেকে বিভিন্ন স্থানে প্রতিমা তৈরির কাজ শুরু হয়েছে। একটি বড় মূর্তি তৈরি করতে সময় লাগে ১৫ দিন। অন্যদিকে এক একটি ছোট মূর্তি তৈরি করতে সময় লাগে ১০ দিন। বর্তমানে মূর্তি তৈরির কাজ পুরোদমে রাতদিনে করছি। এরপর রঙের কাজ করা হবে। সবকাজ শেষে নির্দিষ্ট সময়ের আগেই মÐপের প্রতিমা বসানো হবে। আমরা সারা বছর এই সময়ের জন্য অপেক্ষায় থাকি। কারণ বছরের অন্য সময় তেমন কাজ না থাকলেও এই সময় ব্যস্ততা বেড়ে যায়। তবে সময়ের সঙ্গে মানুষের জীবন যাত্রার ব্যয় বাড়লেও সে অনুপাতে প্রতিমা তৈরির মজুরি বাড়েনি। এবছর আমি ৫ টি প্রতিমা তৈরি অর্ডার নিয়েছি। প্রতি প্রতিমা ২০ থেকে ৩৫ হাজার টাকায় তৈরি করছি। .

পৌর শাখা বাংলাদেশ পূজা উদ্যাপন পরিষদের আহবায়ক আনন্দ কুমার গুপ্ত বলেন, পূজো আর দেরি নাই। মÐপে মÐপে পুরোপুরিভাবে প্রস্তুতি চলছে। গতবার উপজেলায় ৫৫ টি মÐপে পূজো অনুষ্ঠিত হলেও এবছর তিনটি মÐপে পূজো বেড়েছে। এবছর মোট ৫৮ টি মÐপে পূজো অনুষ্ঠিত হবে। ফুলবাড়ী উপজেলায় সুষ্ঠু ও শান্তিভাবে পূজো অনুষ্ঠিত হয়। এখানে কোনোপ্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনা। আশা করছি এবারো শান্তিপূর্ণ পরিবেশেই পূজো অনুষ্ঠিত হবে। .

উপজেলা শাখা বাংলাদেশ পূজা উদ্যাপন পরিষদের সদস্য সচিব প্রধান শিক্ষক ধীমান চন্দ্র সাহা বলেন, সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব হচ্ছে শারদীয় দুর্গা পূজা। প্রতি বছরের মতো এবারও এ উৎসবটি জাকজমকভাবে উদযাপন করা হবে। সকলকে সুষ্ঠু ও শান্তিভাবে পূজা উদযাপনের জন্য অনুরোধ করছি। পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীদের সজাগ থাকার জন্য অনুরোধ করছি। আশা করছি নির্বিঘেœ পূজা পালন করতে প্রশাসন থেকে সার্বিক সহযোগিতা অব্যহত থাকবে। এবছর দেবির আগম ঘোটে আর গমন দোলায়। 
   দিনাজপুর জেলা শাখা বাংলাদেশ পূজা উদ্যাপন পরিষদের অন্যতম সদস্য প্রভাষক অমর চাঁদ গুপ্ত অপু বলেন, সুষ্ঠু-সুন্দর ও উৎসবমূখর পরিবেশে এ বছর দুর্গাপূজো আয়োজনের জন্য পূজা উদযাপন পরিষদের পক্ষ থেকে সার্বিক প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। এছাড়াও পূজা মÐপগুলোর সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণ ও অন্যান্য সুবিধা নিশ্চিত করতে শিঘ্রই জেলা প্রশাসন, উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশের সাথে মতবিনিময় করা হবে। .

ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আশ্রাফুল ইসলাম বলেন, আশা করছি প্রতিবছরের মতো এবারো সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির মধ্যদিয়ে ফুলবাড়ীতে শান্তিপূর্ণ ও উৎসবমূখর পরিবেশে দুর্গোৎসব উদযাপিত হবে।
ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রিয়াজ উদ্দিন বলেন, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে বৃহৎ দুর্গোৎসব পালন করতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে সার্বিক নজরদারি রাখা হবে। কোনো রকম অপ্রীতিকর ঘটনার পূর্বাভাস পেলে প্রশাসনকে অবগত করার জন্য সবাইকে অনুরোধ করা হলো। তিনি আরো বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে প্রতিটি মÐপে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করণসহ নিরাপত্তার বিষয়ে পূজা মÐপ কমিটিসহ সনাতন ধর্মাবলম্বীর নেতাদের সাথে বসা হবে। 
 .

.

ডে-নাইট-নিউজ / প্লাবন শুভ, ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:

ধর্ম বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ