• ঢাকা
  • শনিবার, ২ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ; ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
  • Govt. SL. No:-352

Advertise your products here

অবিলম্বে সিলেট-ছাতক ট্রেন চালুর দাবী খাজাঞ্চি বাসীর


ডে-নাইট-নিউজ ; প্রকাশিত: শনিবার, ২১ আগষ্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ০৬:২১ পিএম;
অবিলম্বে সিলেট-ছাতক ট্রেন চালুর দাবী খাজাঞ্চি বাসীর
অবিলম্বে সিলেট-ছাতক ট্রেন চালুর দাবী খাজাঞ্চি বাসীর

মুহাম্মদ সায়েস্তা মিয়া বিশ্বনাথ থেকেঃ  থেকে ছাতক পর্যন্ত প্রায় ৩৫ কিলোমিটার রেলপথ ১৯৫৬ সালে নির্মিত হয়।সেই থেকে আজ অবধি এই রেলপথে ট্রেন চলাচল করে যাত্রী সাধারণের সেবায় একনিষ্ঠ আছে। ট্রেন খাজাঞ্চি -সৎপুর - আফজলাবাদ যাত্রা বিরতী করে চলাচল করে আসছে ছাতক পর্যন্ত ।সিলেট শহরে এই চারটি ষ্টেশন থেকে কয়েক হাজার যাত্রী সাধারণ যাতায়াত করে আসছে প্রতিনিয়ত। কিন্তু ১৯৮৫ সাল থেকে কোন না কোন ভাবে এই রেলপথের মন্দাভাব দেখা দিয়েছে। তারপরেও যাত্রী সাধারণ যাতায়াত ও ভ্রমণের সহজ ও আরামদায়ক বাহন হিসেবে এই ট্রেনকে বেঁচে নেন। কিন্তু বাধ সাধে (কোভিড ১৯) করোনা ভাইরাস।.

মহামারি করোনা ভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতিতে প্রায় দেড় বছর ধরে বন্ধ আছে সিলেট ছাতক রেলপথে যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল। সারাদেশে ট্রেন চলাচল শুরু হলেও কেন চালু হচ্ছেনা সিলেট থেকে ছাতক গামী ট্রেন।.

কবে কখন এই রেলপথে ট্রেন চলাচল চালু হবে এ নিয়ে মানুষের মধ্যে আজ একটা অস্থির ভাব বা সংশয় বিরাজ করছে। আদৌ চালু হবে নাকি চলাচল চিরতরে বন্ধ হয়ে যাবে কেউ জানেন না। রেলপথ নির্মিত হওয়ার পর থেকে এই অঞ্চলের লোকজনের যাতায়াতের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম সিলেট – ছাতক ট্রেন যোগাযোগ। কিন্ত করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে গত বছর এই পথে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে গেলে আজ অবধি আবার চালু হবার কোন লক্ষ্মণ দেখা যাচ্ছেনা।.

রেললাইন ও রেলওয়ে ষ্টেশন ও তার আশেপাশের অবস্থা যেন ঝোপঝাড়ে ভূত বাসের অবস্থায় পরিণত হয়েছে। ষ্টেশন মাষ্টার ও কর্মকর্তা বিহীন রুম তালাবদ্ধ অবস্থায় পড়ে রয়েছে মাসের পর মাস। এ যেন মরার উপর খাঁড়ার গা। বিভিন্ন সময়ে লকডাউন শিথিল হওয়ার পর সারাদেশে ট্রেন চলাচল শুরু হলেও কোন কারণে সিলেট ছাতক রেলপথে ট্রেন চলাচল বন্ধ রয়েছে, যাত্রী সাধারণ ও এলাকার সচেতন মহলের ভাবনা। বন্ধ থাকাটা কর্তৃপক্ষের গাফিলতি না অন্য কোন কারণ। ট্রেন চলাচল বন্ধ থাকায় ছাতক, আফজলাবাদ, সৎপুর খাজাঞ্চী সহ এ অঞ্চলের লোকজন যাতায়াতে নানাভাবে ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন। যাত্রী সাধারণ এই ভোগান্তি থেকে রেহাই চান। একজন যাত্রী সড়ক পথে ছাতক থেকে সিলেট যেতে হলে গাড়ি ভাড়া গুনতে হয় ১০০ থেকে ১২০ টাকা। আর ট্রেনে যেতে লাগে ১০-১৫ টাকা। এই ভাড়ার প্রার্থক্যে মানুষ হিমশিম খেতে হচ্ছে। এ জন্য স্বল্প ভাড়া আর আরামদায়ক ভ্রমণ হিসেবে সাধারণ যাত্রীদের ট্রেনই ভরসা।.

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক রেলওয়ে কর্মকর্তাকে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, কবে সিলেট থেকে ছাতক গামী ট্রেন চালু হবে আমি তা বলতে পারবো না।এটা বাংলাদেশ রেলওয়ের উর্ধতন কতৃপক্ষের বিষয়।.

রেলপথে নিয়মিত যাত্রী জাহেদ ও শামসুল ইসলামকে জিজ্ঞেস করলে তারা বলেন,সিলেট ছাতক রেলপথে ট্রেন চলাচল বন্ধ থাকায় এখন তাদের অতিরিক্ত ভাড়া গুনতে হচ্ছে। এই অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে চাকুরী করে কি লাভ।চাকুরী ছেড়ে দেওয়াই ভালো।তাদের মতো আরো অনেকেই সড়কপথে অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে সিলেটে যাতায়াত করতে হয়। এমতাবস্থায় বাংলাদেশ রেলওয়ের কাছে দাবী, খাজাঞ্চিবাসী দাবী দ্রুত সিলেট থেকে ছাতক গামী ট্রেন চালু করে এই অঞ্চলের হাজার হাজার ভুক্তভোগী যাত্রী সাধারণের দূর্দশা লাগব করা হোক।. .

ডে-নাইট-নিউজ / মুহাম্মদ সায়েস্তা মিয়া বিশ্বনাথ

তথ্যপ্রযুক্তি ও বিজ্ঞান বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ